News before News

নেত্রীকে মুক্তি না দিলে আমরন অনশন : এটিএম কামাল

নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপি সাধারণ সম্পাদক এটিএম কামাল বলেছেন, স্বাধীনতার ঘোষক শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের সহধর্মীনি দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে এই ভাষার মাসেও যদি মুক্তি দেয়া না হয় তাহলে মহানগর বিএনপি’র পক্ষ থেকে আমরন অনশন কর্মসূচীর ঘোষনা দেয়া হবে। অতীতেও আমরা এই কর্মসূচী দিয়ে ছিলাম আগামীতেও দিবো।

বুধবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) কালিবাজারস্থ এলাকায় বেগম খালেদা জিয়ার রায়ের প্রতিবাদে কেন্দ্র ঘোষিত অনশন কর্মসূচী পালনকালে তিনি এ কথা বলেন। কর্মসূচী শেষে বিকেল ৫টায় পাঠানো মহানগর বিএনপির প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এমনটাই দেখা গেছে।

মহানগর বিএনপির সভাপতি ও সাবেক সাংসদ অ্যাডভোকেট আবুল কালামের নির্দেশনায় এবং সাধারণ সম্পাদক এটিএম কামালের নেতৃত্বে এ সময় আরও উপস্থিত ছিলো সংগঠনের সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবু আল ইউসুফ খান টিপু সহ বিএনপি ও এর সহযোগী সংগঠনের নেতারা।

এ সময় এটিএম কামাল বলেন, বড় দুঃখের সাথে বলতে হয় এই অবৈধ সরকার বিএনপি ও শহীদ জিয়ার পরিবারকে ধ্বংস করার জন্য মিথ্যা অপবাদ দিয়ে দেশনেত্রীকে কারাগারে প্রেরন করেছে। এখন তাদের মূল লক্ষ্য নির্বাচন থেকে বিএনপিকে হটানো। আমরা পরিষ্কার ভাষায় বলে দিতে চাই বিএনপি’র চেয়ারপারসনকে ছাড়া কোন নির্বাচন হতে দিবো না। সেই সাথে সরকারকে বলে দিতে চাই এই ভাষার মাসে যদি দেশনেত্রীকে মুক্তি ও তারুন্যের অহংকার আগামী দিনের রাষ্ট্রনায়ক তারেক রহমানের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার না করা হয় তাহলে মহানগর বিএনপির আমরন অনশন কর্মসূচী ঘোষনা করবে।

কর্মসূচি শেষে নেতৃবৃন্দদেরকে পানি পান করিয়ে অনশন ভাঙ্গান এটিএম কামাল।

তবে কর্মসূচীর ছবি ভাইরাল হবার পত থেকে দলের নেতাকর্মীদের সমালচনার মুখে পড়েন নেতারা। কারণ কর্মসূচীর স্থান ও কোথায় হয়েছে সেটি যেমন কেউ জানেনা তেমন কর্মসূচী শেষ হবার পর ছবি দেখে মনে হয়েছে কারো বাসায় কোন রুমের মধ্যে বসে দলের নেতারা ফটসেশন করেছেন। আবার অনেকেই এও বলেছেন এটি হয়তো নেতারা বর্তমানে যে স্থানে আত্মগোপনে রয়েছেন সেরকম কোন স্থানেই তারা কোন রুওম বন্ধ করে ছবি তুলে কর্মসূচী পালন করেছেন বলে প্রেস বিজ্ঞপ্তি পাঠিয়েছেন।

আপনার এগুলো পছন্দ হতে পারে